| ঢাকা, শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৭

আইপিএলে স্মিথকে দলে নিতে তিন দলের কাড়াকাড়ি

২০২১ জানুয়ারি ২৪ ০০:৩২:৩৪
আইপিএলে স্মিথকে দলে নিতে তিন দলের কাড়াকাড়ি

স্টিভ স্মিথকে রিলিজ করে দিয়েছে রাজস্থান রয়্যালস। সিডনি টেস্টের পরেই গুঞ্জন শুরু হয়েছিল অজি তারকাকে হয়ত রিটেন না-ও করতে পারে মরু শহরের ফ্র্যাঞ্চাইজি। ২০ তারিখ দলের রিলিজ করা ক্রিকেটারদের তালিকা প্রকাশ করে রাজস্থান।

সেখানেই দেখা যায় স্টিভ স্মিথকে ছেড়ে দিচ্ছে তারা। গত আইপিএলের ফর্মের কথা বিবেচনা করেই স্মিথের বিষয়ে এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে ফ্র্যাঞ্চাইজি। ১৪ লিগ ম্যাচে স্মিথ ১৩১ স্ট্রাইক রেটে করেছিলেন মাত্র ৩১১ রান। হাফসেঞ্চুরি করেছিলেন ৩টি। গত মরশুমে স্মিথের অফ ফর্ম টুর্নামেন্ট জুড়েই ভুগিয়েছে রাজস্থানকে। একাধিকবার নিজের ব্যাটিং পজিশন বদলেছেন তিনি। ওপেনার হিসাবে শুরু করে পরে মিডল অর্ডারে নামেন।

২০১৮-য় নিলাম শুরুর আগে কেবলমাত্র স্মিথকেই ১২.৫ কোটি টাকায় (১.৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার) রিটেন করে রাজস্থান। ২০১৮ সালে নির্বাসন কাটিয়ে রাজস্থান আইপিএলে প্রত্যাবর্তন করেছিল। আর স্মিথকেই নেতা হিসেবে বাছা হয়। তবে বল ট্যাম্পারিং কাণ্ডে জড়িয়ে স্মিথ নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ান। ২০১৯-এ টুর্নামেন্টের মাঝপথে রাহানেকে সরিয়ে ফের একবার নেতৃত্ব তুলে দেওয়া হয় স্মিথের হাতে।

যাইহোক, স্মিথকে রাজস্থান রিলিজ করলেও তিন ফ্র্যাঞ্চাইজি নাকি আসন্ন নিলামে তারকাকে পেতে ঝাঁপাবে। এমনটাই খবর। এর মধ্যে রয়েছে চেন্নাই সুপার কিংস, রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর এবং দিল্লি ক্যাপিটালস।

দিল্লি ক্যাপিটালস এবার রিলিজ করে দিয়েছে অস্ট্রেলিয়ান তারকা এলেক্স ক্যারিকে। টপ অর্ডারে একজন বিদেশির স্লট ফাঁকা রয়েছে দিল্লিতে। এমন কাউকে খোঁজা রয়েছে যিনি দলের ইনিংস টেনে নিয়ে যাওয়ার ক্ষমতা রাখেন। ঋষভ পন্থ, শিখর ধাওয়ান, মার্কাস স্টোয়িনিসদের ঝোড়ো ব্যাটিংয়ের পরিপূরক হতে পারেন স্মিথের দায়িত্বশীল ব্যাটিং, এমনটাই মনে করছে ফ্র্যাঞ্চাইজি।

সিএসকে দলেও একই রকমের চাহিদা। চেন্নাই থেকে এবার অবসর নিয়েছেন শ্যেন ওয়াটসন। শোনা যাচ্ছে, স্যাম কুরানকে ওপেন করতে পাঠানো হতে পারে ফাফ ডুপ্লেসিসের সঙ্গে। রুতুরাজ গায়কোয়াড অবশ্য আগের মরশুমেই অনেক প্রতিশ্রুতি জাগিয়েছেন। এবার রায়নাও ফিরছেন। এর সঙ্গেই সিএসকে ম্যানেজমেন্টকে মনে করছে স্মিথ যুক্ত হলে দলের শক্তি অনেকগুন বেড়ে যাবে।

আরসিবি আবার ফিঞ্চকে রিলিজ করেছে দুর্বল ফর্মের কারণে। মিডল অর্ডার প্রত্যেকবারেই টানার দায়িত্ব থাকে কোহলি এবং এবি ডিভিলিয়ার্সের উপর। দুই তারকা ব্যর্থ হলেই মুখ থুবড়ে পড়ে বেঙ্গালুরুর ইনিংস। তাই মিডল অর্ডারে শক্তি বাড়ানোর জন্য স্মিথকে পেতে প্রাণপনে ঝাঁপাবে কোহলির দল।ফেব্রুয়ারিতেই নিলাম। স্মিথ এখন কোন দলে নাম লেখান, সেটা নিলামের অন্যতম আকর্ষণ হতে চলেছে।

পাঠকের মতামত:

ক্রিকেট এর সর্বশেষ খবর

ক্রিকেট - এর সব খবর



রে